সড়ক দুর্ঘটনায় ১১ জনের প্রাণহানি

ঢাকা: পবিত্র ঈদ উল আজহার দিনেও সড়ক দুর্ঘটনায় ১১ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। কুষ্টিয়া, বগুড়া ও সিরাজগঞ্জে এসব সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে। এসময় বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন বলেও খবর পাওয়া গেছে।

কুষ্টিয়া: কুষ্টিয়ায় ট্রাক ও মাহেন্দ্র সংঘর্ষে শিশুসহ তিনজন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় অন্তত চারজন আহত হয়েছে। বুধবার ঈদের দিন দুপুরে কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ মহাসড়কের বটতৈল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলো- কুষ্টিয়ার দৌলতপুরের সাহাবুল (১২), চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গার শিপন (২৮) এবং অপরজনের নাম জানা যায়নি। ঈদের দিন আত্মীয়ের বাড়িতে যাচ্ছিল সাহাবুল ও শিপন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, দুপুরে কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ মহাসড়কের বটতৈল এলাকায় কুষ্টিয়াগামী একটি যাত্রীবাহী মাহেন্দ্রের সঙ্গে ট্রাকের সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই দুই মাহন্দ্রে যাত্রী নিহত হয়। এ সময় পাঁচজন আহত হয়। স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করলে সেখানে একজনের মৃত্যু হয়। নিহতদের লাশ মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

বগুড়া: বগুড়ার শেরপুর ও শাজাহানপুর উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় পাঁচজন নিহত হয়েছেন; এছাড়া আহত হয়েছেন আরও দুইজন। বুধবার শাজাহানপুরে বাসের সঙ্গে অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষ আর শেরপুরে গাছের সঙ্গে মোটরসাইকেল ধাক্কা খেলে হতাহতের এসব ঘটনা ঘটে বলে পুলিশ জানিয়েছে। নিহতদের মধ্যে দুইজন হলেন জেলার কাজীপুর উপজেলার হাজরাহারি গ্রামের সোহরব হোসেনের ছেলে শামীম আকাশ (২৮) ও জয়নাল আবেদিন সোহেল রানা (২৭)। বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমার মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির এসআই আব্দুল আজিজ জানান, সকাল সাড়ে ৮টার দিকে শাজাহানপুর উপজেলার নাঝিরাবাজার এলাকার ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কে বাসের সঙ্গে অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।

“অটোরিকাশাটি শাজাহানপুর থেকে যাত্রী নিয়ে শেরপুর যাচ্ছিল। পথে বিপরীত দিক থেকে আসা রংপুরগামী আল হামরা পরিবহনের একটি বাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই একজনের মৃত্যু হয়। হাসপাতালে আনার পর চিকিৎসক আরও দুইজনকে মৃত ঘোষণা করেন।” এ দুর্ঘটনায় আরও দুইজন আহত হওয়ায় তাদের এই হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে বলে তিনি জানান। এদিকে শেরপুর উপজেলার শালপাড়া বোয়ালকান্দি এলাকায় বেলা ১২টার দিকে একটি মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে দুইজন নিহত হয়েছেন। শেরুপর থানার ওসি হুমায়ুন কবির বলেন, “আকাশ ও রানা উপজেলার কাজীপুর থেকে মোটরসাইকেলে করে শেরপুর যাচ্ছিলেন। পথে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছে ধাক্কা খেয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান।”

সিরাজগঞ্জ: আজ দুপুরে বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম সংযোগ সড়কের একটি ওভারব্রিজ এলাকায় দুর্ঘটনায় দুই গরু ব্যবসায়ী এবং সকালে হাটিকুমরুল-বনপাড়া মহাসড়কের সলঙ্গা থানার চড়িয়া কামারপাড়া এলাকায় দুর্ঘটনায়  আরো একজন মারা গেছেন। নিহতদের মধ্যে একজনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তিনি হলেন সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার বাতিয়ারপাড়া গ্রামের শমসের আলীর ছেলে মনসুর আলী (৪০)। সিরাজগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের উপপরিচালক আবদুল হামিদ জানান, দুপুরে ঢাকা থেকে গরুর ব্যবসায়ীদের নিয়ে একটি ট্রাক সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে যাচ্ছিল। ট্রাকটি ঝাঐল ওভারব্রিজ এলাকায় পৌঁছালে চালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে। এতে ট্রাকটি মহাসড়কের ওপর উল্টে ঘটনাস্থলেই একজন নিহত ও পাঁচজন আহত হন।

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের সদস্য ও পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে আহতদের উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসার পথে আরো এক গরুর ব্যবসায়ী নিহত হন। অন্যদিকে, হাটিকুমরুল-বনপাড়া মহাসড়কে সলঙ্গার চড়িয়া কামারপাড়া এলাকায় ট্রাকের সঙ্গে একটি মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে মাইক্রোবাস চালকসহ ট্রাকের ছয় যাত্রী আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে হাটিকুমরুল গোলচত্বরে সাখাওয়াত মেমোরিয়াল হাসপাতালে নেওয়ার পথে এক গরুর ব্যবসায়ী নিহত হন।






Related News

  • জাতীয় মাছ ইলিশের জীবনরহস্য উন্মোচন
  • বীরশ্রেষ্ঠ নূর মোহাম্মদের শাহাদাতবার্ষিকী পালিত নড়াইলে
  • অভিযুক্ত হচ্ছেন ৬জন মীম-রাজিব নিহতের ঘটনায়
  • বাস চাপায় প্রাণ গেল পুলিশ কর্মকর্তার
  • সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১৩ নাটোরে
  • ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই মাদক ব্যবসায়ী নিহত মাগুরায়
  • ৩১টি গরু নিয়ে বুড়িগঙ্গায় ট্রলার ডুবি, ৩ মালিক নিখোঁজ